WhatsApp Scam: ফোন বা WhatsApp-এ এই মেসেজ পেয়েছেন? এভাবেই কোটি-কোটি টাকা খুইয়েছেন মানুষ!

Spread the love

হোয়াটসঅ্যাপ বা টেক্সট মেসেজে কি ‘হাই মম’ (Hi Mum) মেসেজ পেয়েছেন? তাহলে এখনই এড়িয়ে যান। নাহলে আপনার জীবনের কষ্টার্জিত অর্থ খুইয়ে ফেলতে পারেন। অস্ট্রেলিয়ায় তেমনই হয়েছে বলে একটি সংবাদমাধ্যমের প্রতিবেদনে জানানো হয়েছে।

ব্রিটিশ সংবাদমাধ্যম দ্য ইন্ডিপেন্ডেটের প্রতিবেদন অনুযায়ী, অস্ট্রেলিয়ার কনজিউমার অ্যান্ড কম্পিটিশন কমিশনের তথ্য থেকে উঠে এসেছে যে চলতি বছর সেই প্রতারণা চক্রের ফাঁদে পড়ে ৭০ মিলিয়ন ডলারের (ভারতীয় মুদ্রায় ৫৮ কোটি টাকার মতো) বেশি খুইয়েছেন অস্ট্রেলিয়ানরা। শুধু তাই নয়, শেষ তিন মাসে সেরকম প্রতারণার ঘটনা ১০ গুণ বেড়েছে।

ওই সংবাদমাধ্যমের প্রতিবেদন অনুযায়ী, ‘হাই মম’ মেসেজ পাঠানো হয়। অথবা বন্ধু বা পরিবারের সদস্য হিসেবে দাবি করে পাঠানো হয় সেই মেসেজ। মূলত হোয়াটসঅ্যাপে মেসেজ আসে। তাতে দাবি করা হয়, ওই মেসেজ প্রেরকের ফোন হারিয়ে গিয়েছে বা ফোন খারাপ গিয়েছে। তাই অন্য নম্বর থেকে মেসেজ করছে। অত্যন্ত বিপদে পড়েছে বলে দাবি করে ওই মেসেজের প্রেরকরা। সেজন্য অর্থের দরকার আছে বলে দাবি করে। সহজভাবে বিষয়টি বিশ্বাস করে নিয়ে অর্থ পাঠিয়ে দেন অনেকেই।

আরও পড়ুন: WhatsApp View Once: একবার পড়লেই নিজে থেকে ডিলিট হবে মেসেজ! আসছে নতুন ফিচার

সেভাবেই চলতি বছর অস্ট্রেলিয়ানরা কোটি-কোটি টাকা খুইয়েছেন বলে ওই সংবাদমাধ্যমের প্রতিবেদনে দাবি করা হয়েছে। অস্ট্রেলিয়ার সংবাদমাধ্যম এবিসি.ডটকমকে উদ্ধৃত করে ওই ব্রিটিশ সংবাদমাধ্যমের প্রতিবেদনে জানানো হয়েছে, সেইভাবে জালিয়াতির জাল বিছিয়ে চলতি বছর ৭০.২ মিলিয়ন ডলার হাতিয়ে নিয়েছে প্রতারকরা। প্রায় ১১,১০০ জন ওই প্রতারণা চক্রের খপ্পরে পড়েছেন।

আরও পড়ুন: WhatsApp introducing new feature: হোয়াটসঅ্যাপে বিরাট চমক! তবে সকলের ফোনে কাজ করবে না, আপনার ফোনে কাজ করবে কি?

ওই সংবাদমাধ্যমের প্রতিবেদন অনুযায়ী, অস্ট্রেলিয়ার কনজিউমার অ্যান্ড কম্পিটিশন কমিশন জানিয়েছে যে গত অগস্ট থেকে প্রতারণার সংখ্যা ১০ গুণ বেড়েছে। তখনও পর্যন্ত মোট ১,১৫০ জনকে ফাঁদে ফেলেছিল প্রতারণা চক্র। তখনও পর্যন্ত প্রতারণার অঙ্কটা ২.৬ মিলিয়ন ডলারের কাছাকাছি ছিল। কিন্তু শেষ তিন মাসে লাফিয়ে বেড়েছে।

Source link


Spread the love
0 0 votes
Article Rating
Subscribe
Notify of
guest
0 Comments
Inline Feedbacks
View all comments
Secured By miniOrange